নিশ্চিত মৃত্যু থেকে হতভাগা মা-শিশুকে বাঁচালেন এসআই রাশেদা!

ট্রেনের নিচে ঝাঁপ দিয়ে আত্মহত্যা করতে যাওয়া ফুটফুটে শিশুসহ এক হতভাগা মাকে নির্ঘাত মৃত্যুর দুয়ার থেকে ফিরিয়ে আনলেন পুলিশ কর্মকর্তা এসআই রাশেদা।

তার নিজের ফেসবুক আইডিতে সেটাই শেয়ার করেছেন। এসআই রাশেদার পোস্টটি পাঠকদের জন্য হুবহু তুলে ধরা হলো_

“অকালে ঝরে যেত দুটি তাজা প্রাণ…
…পুলিশে চাকরী করে আজ আমি ধন্য’…

আজ ২৮শে এপ্রিল ২০১৮ শনিবার, খিলগাঁও রেলগেট এলাকায় ডিউটি করাকালীন সময়ে আনুমানিক ১২ ঘটিকার সময় কমলাপুর রেলস্টেশন থেকে উত্তরবঙ্গগামী ট্রেন ছেড়ে আসে। আমি খুব দ্রুত ট্রেন লাইন ক্লিয়ার করে দেই এবং ট্রেন আসার জন্য অপেক্ষা করতে থাকি। ট্রেন চলে আসতেছে খুব কাছে ঠিক সেই সময় ১৯ বছর বয়সী একটি মেয়ে কাঁধে দশ মাস বয়সী একটি বাচ্চাকে নিয়ে আত্মহত্যা করার উদ্দেশ্যে ট্রেনের দিকে দ্রুত যাইতে থাকে!

তৎক্ষণাৎ আমি মেয়েটির গতিবিধি বুঝতে পেরে মেয়েটির পেছনে দৌড়াইয়া যাই এবং সজোরে ধাক্কা দিয়ে লাইনের বাইরে সরিয়ে নেই। কয়েক সেকেন্ডের মধ্যেই ট্রেনটি খিলগাঁও রেলগেট অতিক্রম করে চলে যায়। মেয়েটিকে আমার নিজ হেফাজতে নেই।

তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করে জানতে পারি যে তার দুটি সন্তান আছে, তার স্বামী নেশাগ্রস্ত। নিয়মিত পারিবারিক কলহ লেগে থাকায় সে আত্মহত্যা করে মরে যেতে চায়। পরবর্তীতে ট্রাফিক কন্ট্রোলকে বিষয়টি অবগত করে নিকটস্থ থানায় মেয়েটিকে এবং তার আদরের ফুটফুটে বাচ্চাটিকে তুলে দিই।”

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।